শিরোনাম
সিলেটের সকল নৌকা প্রার্থীদের অভিনন্দন জানিয়ে রাহেল সিরাজের নেতৃত্বে আনন্দ মিছিল সিলেট বিভাগে নৌকার মাঝিদের সিসিক মেয়র আনোয়ারুজ্জামানের অভিনন্দন গোলাপগঞ্জে মোবাইলে প্রাণনাশের হুমকী থানায় জিডি প্রহসনমূলক অবৈধ তফসিল বাতিলের দাবীতে সিলেট মহানগর ছাত্রশিবিরের বিক্ষোভ ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পরিদর্শন করলেন মেয়র আনোয়ারুজ্জামান তফসিল প্রত্যাখ্যান করে সিলেট নগরীতে বিএনপির বিক্ষোভ মিছিল গ্রাহক সেবা নিশ্চিতে সিলেট পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর উঠান বৈঠক মোগলাবাজার জয়তুন ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের ফ্রি চক্ষু ক্যাম্প ও ছানি অপারেশন অনুষ্ঠিত মুক্তিযোদ্ধা সন্তান পারভেজের খুনিদের দ্রুত গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন বিএনপি, জামায়াতের নৈরাজ্যের প্রতিবাদে দক্ষিণ সুরমা আ’লীগের শান্তি সমাবেশ
বৃহস্পতিবার, ৩০ নভেম্বর ২০২৩, ০৯:১১ অপরাহ্ন

প্রতারণার জন্য কভিডকে ব্যবহার করছে: ট্রাম্প

রিপোটারের নাম
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ২৫ আগস্ট, ২০২০
কভিডকে ব্যবহার করছে: ট্রাম্প

বিজ্ঞাপন

তাঁকে হারানোর একমাত্র রাস্তা ভোট লুঠ। রিগিং। বিরোধীরা সেই চেষ্টাই করছে বলে  জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তাঁর বক্তব্য, মেল ব্যালটের মাধ্যমে নির্বাচনের যে প্রচার চালাচ্ছে ডেমোক্র্যাটরা, তা আসলে রিগিংয়ের জন্য। ট্রাম্পের অভিযোগ, বিরোধীরা আমেরিকান জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করার জন্য কভিডকে ব্যবহার করছে। এই প্রথম নয়, এর আগে একাধিকবার মেল ব্যালটের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। তাঁর অভিযোগ, মেল ব্যালট রিগিংয়ের জন্য সব চেয়ে ভালো। যদিও মার্কিন নির্বাচন কমিশন ট্রাম্পের অভিযোগের সঙ্গে কখনওই এক মত হয়নি। তারা বরাবরই বলে এসেছে, মেল ব্যালটের সাহায্যে যে রিগিং করা সম্ভব, এমন প্রমাণ এখনও পর্যন্ত পাওয়া যায়নি।

ট্রাম্প অবশ্য কোনো যুক্তি শুনতেই রাজি নন। তাঁর বক্তব্য, নিরপেক্ষ ভোট হলে তাঁকে হারানো সম্ভব নয়। সে কারণেই করোনাকে ব্যবহারের চেষ্টা চালাচ্ছে বিরোধীরা। বক্তৃতায় তিনি এক জায়গায় বলেই ফেলেছেন, যদি তিনি হেরে যান, তাহলে ধরে নিতে হবে রিগিং হয়েছে।

এর আগে ২০১৬ সালেও একই অভিযোগ করেছিলেন ট্রাম্প। হিলারি ক্লিন্টনের বিরুদ্ধে রিগিংয়ের অভিযোগ করেছিলেন। যদিও শেষ পর্যন্ত জয় হয়েছিল তাঁরই। এ বছর অবশ্য প্রাকভোট সমীক্ষা বলছে, জো বাইডেন ট্রাম্পের চেয়ে অনেকটাই এগিয়ে আছেন।  মার্কিন গৃহযুদ্ধের সময় থেকে মেল ব্যালটের প্রচলন আছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। সেনা, প্রশাসনিক কর্মকর্তা এই ব্যালটের মাধ্যমে বহু দিন ধরে ভোট দিয়ে আসছেন। ট্রাম্প এবং তাঁর পরিবারও এই ব্যালটের মাধ্যমে ভোট দিয়েছেন।

সূত্র: ডয়চে ভেলে বাংলা, বিবিসি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ