শিরোনাম
সিলেটের সকল নৌকা প্রার্থীদের অভিনন্দন জানিয়ে রাহেল সিরাজের নেতৃত্বে আনন্দ মিছিল সিলেট বিভাগে নৌকার মাঝিদের সিসিক মেয়র আনোয়ারুজ্জামানের অভিনন্দন গোলাপগঞ্জে মোবাইলে প্রাণনাশের হুমকী থানায় জিডি প্রহসনমূলক অবৈধ তফসিল বাতিলের দাবীতে সিলেট মহানগর ছাত্রশিবিরের বিক্ষোভ ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পরিদর্শন করলেন মেয়র আনোয়ারুজ্জামান তফসিল প্রত্যাখ্যান করে সিলেট নগরীতে বিএনপির বিক্ষোভ মিছিল গ্রাহক সেবা নিশ্চিতে সিলেট পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর উঠান বৈঠক মোগলাবাজার জয়তুন ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের ফ্রি চক্ষু ক্যাম্প ও ছানি অপারেশন অনুষ্ঠিত মুক্তিযোদ্ধা সন্তান পারভেজের খুনিদের দ্রুত গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন বিএনপি, জামায়াতের নৈরাজ্যের প্রতিবাদে দক্ষিণ সুরমা আ’লীগের শান্তি সমাবেশ
শনিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২৩, ০১:৪২ পূর্বাহ্ন

গোলাপগঞ্জে ২৫ মহিলাসহ আন্ত জেলা চোর চক্রের ২৭ সদস্য আটক

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশের সময় : সোমবার, ৩ এপ্রিল, ২০২৩
আটক

বিজ্ঞাপন

সিলেটের গোলাপগঞ্জ উপজেলায় হিন্দু ধর্মের বারণী উৎসব থেকে আন্ত জেলা চোর চক্রের ২৭ জনকে আটক করেছে গোলাপগঞ্জ মডেল থানার পুলিশ। তাদের মধ্যে ২৫ জন মহিলা চোর রয়েছে। এসময় তাদের কাছ থেকে স্বর্ণ, রৌপ্য সহ মূল্যবান অনেক জিনিসপত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

হিন্দু ধর্মের মহাপ্রভু শ্রী চৈতন্য দেবের পৈতৃক নিবাস গোলাপগঞ্জের ঢাকাদক্ষিণে প্রতি বছর চৈত্র মাসের প্রতি রোববারে বারণী উৎসবের আয়োজন করা হয়। এ উৎসবে চুরি করতে এসে প্রথম দিনেই তারা ধরা পড়ে যায়। এ ব্যাপারে পুলিশ প্রশাসনের পক্ষে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আশরাফুজ্জামান প্রেস ব্রিফিং করে বিষয়টি সাংবাদিকদের অবহিত করেন।

স্থানীয় হিন্দুরা প্রতি বছর চৈত্র মাসের প্রতি রোববারে এ উৎসবের আয়োজন করলেও দেশের বিভিন্ন প্রান্তের হিন্দু ধর্মের অনুসারীরা এতে অংশগ্রহণ করে থাকেন। এবারও গত ২ এপ্রিল রোববার বারণী উৎসব চলাকালীন সময়ে চোর চক্রের সদস্যরা তারা হিন্দু না হয়ে হিন্দু মহিলার পোষাক পরিচ্ছেদ ও হাতে শাঁখা পরে মহিলাদের মধ্যে মিশে যায়।

এসময় তারা বিভিন্ন মহিলার স্বর্ণের চেইন, হাতের বালা, কানের দুল, মোবাইল ইত্যাদি চুরি করতে থাকলে প্রথমে একজন ধরা পড়ে। ধৃত মহিলা চোরকে জিজ্ঞাস করলে সে জানায় তার বাড়ী ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া জেলায়। তাকে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করার পর তথ্যে বেরিয়ে আসে অনেক অজানা কথা।

পরবর্তীতে জানা যায় তারা তিনটি মাইক্রো ভাড়া করে একটি সংঘবদ্ধ দল গোলাপগঞ্জে এসেছে। বারণী মেলা পরে তার গোলাপগঞ্জ বাজার সহ বিভিন্ন বাজারে ঈদকে সামনে রেখে চুরির লক্ষে প্রস্তুতি নিয়েছে। পুলিশ বিষয়টি জানার পর এক এক করে ২৭ জন চোরকে আটক করে। তাদের মধ্যে ২৪ জনের বাড়ী ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া জেলার নাছির নগর থানার ধরম-ল গ্রামে। বাকী ৩ জন সিলেটের বিভিন্ন এলাকার অধিবাসী। তাদের কাছ থেকে স্বর্ণ রৌপ্য সহ বিভিন্ন ধরনের মূল্যবান জিনিসপত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

বিষয়টি সর্ব মহলকে অবহিত করতে গোলাপগঞ্জ মডেল থানার উদ্যোগে সোমবার দুপুরে এক প্রেসব্রিফিং এর আয়োজন করা হয়। এতে বিষয়টি লিখিত ভাবে তুলে ধরেন ওসমানী নগর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আশরাফুজ্জামান।

এসময় গোলাপগঞ্জ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম ও অফিসার ইনজার্জ (তদন্ত) সুমন সরকার সহ অনেকেই উপস্থিত ছিলেন। এতো চোর এক সঙ্গে ধরা পড়ার বিষয়টি জানাজানি হলে ব্যবসায়ী মহল সহ সর্বস্তরের মানুষের মধ্যে বিরুপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়।

বিশেষ করে ২৪ জন মহিলা চোর আটকের বিষয়টি বেশ কৌতুহলের জন্ম দিয়েছে। অনেক মহিলার সঙ্গে দুধের শিশু সহ ছোট ছোট ছেলে মেয়ে দেখা যায়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ